টইটং ইউপিতে প্রচারণায় এগিয়ে নৌকার মাঝি জাহেদুল ইসলাম চৌধুরী

টইটং ইউপিতে প্রচারণায় এগিয়ে নৌকার মাঝি জাহেদুল ইসলাম চৌধুরী
Views

পেকুয়া প্রতিনিধি :

টইটং এলাকাবাসী সূত্রে জানাগেছে, ৫০ ইতিহাসকে তিনি পালটে দিয়েছে, পাহাড়ি অঞ্চলে যেখানে মানুষ দিন দুপুরে চলাচলে ভয় পেত কিন্তু এখন রাতের অন্ধকারে চলাচলে ভয় পায় না। আগামী ১১ এপ্রিল ২০২১ ইংরেজি কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার টইটং ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ থেকে মনোনীত নৌকা প্রতীকে চেয়ারম্যান প্রার্থী।

বিগত ৫ বছর আগে টইটংবাজারে ব্যবসায়ীরা ছিল চরম ঝুঁকিতে, সে সময়ে এমন দিন যায়,নি যেখানে ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেনি। জাহেদ চৌধুরী চেয়ারম্যান হওয়ার পরদিন থেকে টৈটং বাজারকে একটি আদর্শিক বাজারে রূপান্তরিত করেছে।

ব্যবসায়ীরা নির্বিঘ্নে ব্যবসা করে যাচ্ছে, শুধু টইটং থেকে নয় দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে এসে ওখানে বিনিয়োগ করছে, ব্যবসায়ীদের জন্য তিনি নতুন দ্বার উন্মোচিত করেছে।

তার গুরুত্বপূর্ণ অবদান সন্ত্রাসীদের দমন অন্যতম, কারো বাড়িতে একটা বড় গাছ থাকলে, একটা বড় মোরগ থাকলে,একটা সুন্দরী যুবতী মেয়ে থাকলে, সন্ত্রাসীদের লালসা থেকে রেহাই পেত,পাহাড়ি অঞ্চলে এমন একদিন ছিল না ডাকাতি সন্ত্রাসী ধর্ষণের মতো ঘটনা ঘটত না।

এক সময় ছিল সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের জন্য টইটংবাসি অস্থির ছিল, সে অস্থিরতাকে খাটিয়ে স্থিরতার জন্য,অশান্ত টৈটংকে শান্তির ফিরে আনার জন্য, তিনি শান্তির দূত বলে মনেকরেন এই জনপদের মানুষেরা।

শুধু শৃঙ্খলা নয়,উন্নয়ন এনেছেন সব জায়গায় রাস্তাঘাট কালভার্ট, বঙ্গবন্ধুর কনিষ্ঠ পুত্র শেখ রাসেলের নামে একটি মিনি স্টেডিয়ামও তিনি করেছেন।

উন্নয়ন, শান্তি-শৃঙ্খলা, আইনের শাসন,সুশাসন সব কিছু বিবেচনা করে এই মুহুর্তে জাহেদুল ইসলাম চৌধুরী জনপ্রিয়তায় শীর্ষে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। চেয়ারম্যান প্রার্থী জাহিদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, আমি বিগত দিনে জনগণের জন্য কাজ করেছি, জনগণ চাইলে আমি চেয়ারম্যান হব, না হয় আমার দরকার নাই।আমি চাই সুষ্ঠু অবাধ নিরপেক্ষ ভোট হোক।

Leave a Reply